The structure of antibodies | antibody definition | antibodies function

0
462
The structure of antibodies

Today describe the structure antibodies | antibody definition and antibodies function. Stanford health care gave us exclusively to the structure of antibodies.

Structure antibodies | Antibody definition

এখন বৈশাখ মাস, রােদের তীব্রতা অনেক বেশি । আবহাওয়া প্রচন্ড গরম । এই গরমে হৃদরোগীরা আরও বেশি অসুস্থ হয়ে যেতে পারেন । এই সময়ে হৃদরোগীদের বুকের ব্যথা বৃদ্ধি পেতে পারে, শ্বাসকষ্ট বেড়ে যেতে পারে, অত্যধিক ঘামের ফলে পানিশূন্যতা দেখা দিয়ে রক্তচাপ অত্যধিক কমে যেতে পারে। যেহেতু হৃদরােগীদের নিয়মিত হাটা-হাটি করা প্রয়োজন, তাই এই সময়ে ঘরে হাটার আগে ১-২ গ্লাস পানি পান করে নিতে হবে। খুব ভোরে অথবা সন্ধ্যার পর কিৎবা রাতে যখন আবহাওয়া অনুকূলে থাকে সে সময় হাটা উচিত ৷ অত্যধিক রোদে অথবা গরমে ছাদে হাটতে না যাওয়াই শ্রেয়।

যদি হৃদরোগীরা এই গরমে অত্যধিক ঘেমে যান এবং ঘামের জন্য প্রচন্ড পানি পিপাসু হয়ে যান সেক্ষেত্রে শুধু পানি পান না করে পরিমিত মাত্রায় অর্থাৎ ১-২ গ্লাস খাওয়ার স্যালাইন খেয়ে নেবেন । যারা এ সময়ে বইিরে কাজে বের হন তারা পানিশূন্যতা রোধে প্রচুর পরিমাণে পানি, ডাবের পানি ফলের রস, রসালো ফলমুল, যেমন : শসা-খিরা, তরমুজ- নাশপাতি, জামরুল এবং লেবূর  শরবত, বেলের শরবত এ ধরনের খাদ্য পর্যাপ্ত পরিমাণ গ্র্রহন করবেন ৷ যেসব হৃদরোগীদের কাজের  প্রয়োজনে বাইরে যেতে হয়। তারা মাঝে মাঝে রক্তচাপ নির্ণয় করে উচ্চরক্তচাপের জন্য ব্যবহৃত মেডিসিন সমন্বয় করে নেবেন । সাধারণত এই গরমকালে রক্তচাপ কমে যাওয়ার প্রবণতা বেশি থাকে ।

তাই প্ৰয়ােজন মাফিক রক্তচাপের ওষুধের মাত্রা কমাতে হবে । যেসব হৃদরোগী Lasix, Fusid, Frusin, Urinide এই ধরনের ওষুধ গ্রহণ করছেন, তারা অত্যধিক ঘর্মাক্ত পরিবেশে কাজ করলে এ ধরনের ওষুধের মাত্রা অর্ধেক করে গ্রহণ করবেন । তবে কোনো অবস্থাতেই চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়া কোনো ওষুধ সম্পূর্ণরূপে বন্ধ করবেন না । তাই এসময় এসব বিষয়ে আমাদের যত্নবান হতে হবে । জীবাণু সংক্রমণ হলে আমাদের শরীরের প্রতিরোধ ব্যবস্থা নানন ভাবে তা ঠেকাতে চেস্টা করে ।

Antibody definition

এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি আলোচিত নাম এন্টিবডি ৷ এন্টিবডি সাধারণভাবে ভাইরাস বা ব্যাকটেরিয়াকে পরাজিত করে শরীরের সুস্থতা নিশ্চিত করে এবং দীর্ঘমেয়াদী শরীরকে সুরক্ষিত রাখে ৷ এন্টিবডির আরও কিছু ব্যবহার রয়েছে যেমন ওষুধ হিসেবে এবং শনাক্তকরানের কিটে গুরুত্পূর্ণ উপাদান হিসেবে । কোনো কোনো সময়ে এই এন্টিবডি শরীরে রোগ বৃদ্ধির কারণও হয়ে যায়।  

এন্টিবডি কী : আমাদের শরীরকে রোগজীবাণু এবং বাইরের বিষাক্ত যেকোন উপাদান থেকে সুরক্ষা দেওয়ার জন্য শরীরে প্রতিরক্ষা বাহিনী সম্মিলিতভাবে কাজ করে । এটাকে ইমিউনিটি সিস্টেম বা প্রতিরোধক ব্যবস্থা বলা হয়। শরীরে যখন কোনো ভাইরাস, ব্যাক্টেরিয়া বা অন্য ক্ষতিকর কিছু প্রবেশ করে। তখন দেহের একাধিক কোষ বাইরে থেকে আসা এই শুত্রকে শনাক্ত করে ,শুত্রকে চেনার জন্য উল্লেখযোগ্য কোনাে বৈশিষ্ট অন্যকোষের কাছে তুলে ধরে এবং এর  ধারাবাহিকতায় এন্টিবডি তৈরি হয় । সাধারনভাবে বাইরে থেকে আসা ভাইরাস ব্যাকটেরিয়াকে শরীর বহিরাগত হিসেবে দেখে এবং এদের এন্টিজেন বলা হয় । এই এন্টিজেনের যে অংশগুলো অনন্য বৈশিন্টের সেগুলোকে এন্টিজেনের এপিটোপ বলা হয় এপিটোপ সাধারণত ভাইরাস বা ব্যাকটেরিয়ার বাইরের অৎশে বের হয়ে থাকা প্রোটিন হয়ে থাকে এন্টিবডি কিছুটা ইংরেজি ওয়াই (Y ) অক্ষরের মতো দেখতে প্রোটিন মলিকিউল যা আকারে একটা ব্যাক্টেরিয়া থেকেও অনেকগুন ছোট ওয়াই এর দুই মাথা, যাদেরকে F ab বলে তারা এন্টিজেনের এপিটোপের সঙ্গে যুক্ত হতে পারে । 

আর নিচের অংশঢির যার নাম Fc সেটি অন্য কোষের গায়ে যুক্ত হতে পারে I উদাহরণস্বরূপ, কভিড-১৯ ভাইরাসের বাইরে অনেকগুলো করোনা বা কাটার মতো অংশ আছে (স্পাইক প্রোটিন) , যেটা দিয়ে ভাইরাসটি আমাদের ফুসফুসের কোষে যুক্ত হয় এবং ভিতরে প্রবেশ করে ।  আমাদের প্রতিরোধক ব্যবস্থা এই স্পাইকগুলােকে এপিটোপ হিসেবে শনাক্ত করে এবং এমন এন্টিবডি বানায় যা সব সময় এ স্পাইক দেখলে আটকে ধরতে পারবে I অর্থাৎ ঐ এন্টিবডিগুলো কভিড- ১৯ এর অনন্য বৈশিষ্ট স্পাইক দেখে চিনবে এবং তার সঙ্গে যুক্ত হতে পারবে। একটি ভাইরাসের সংক্রমন হওয়ার পর শরীরে যে এন্টিবডিগুলো তৈরি হয় তা ভাইরাসে একাধিক এপিটোপ শনাক্ত করতে পারে। তাদের পলিক্লোন এন্টিবডি বলে।

Antibodies function

 

The structure of antibodies

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here